অনুবাদ

আনা আখমাতোভার কবিতা

অনুবাদ: রিয়া রিয়া

মৃত্যু তোমাকে

একসময় না একসময় তুমি
গ্রহণ করবে আমায় –
এখনি নয় কেন?

তোমারই প্রতিক্ষায় আছি –
সহ্যের সব বাঁধ ভেঙেছে,
অন্ধকারে, দরজা খুলে রেখেছি।
সাথে এনো যন্ত্রণা উপশমের
আশ্চর্য কোনো যাদুকরী মলম।
যদি কোন মন ভোলানো ছদ্মবেশ ধরতে হয়,
তবে ছদ্মবেশেই এসো।
দস্যুর মতো বুকে বিঁধে দিতে চাও বিষাক্ত তীর,
যদি মারণব্যাধির জীবাণু রূপ নিতে চাও,
সে ভাবেই এসো।

না হয় এসো একটা বিভৎস গল্পের মতো
যার সমাপ্তি সবার জানা।
নীল টুপি পরা পুলিশের মাঝখানে
গৃহস্বামীর বিবর্ণ মুখ।
এইসব আমার সহ্যের মধ্যে।
ফুলে ওঠে এস্নেই নদীর জল,
আকাশে প্রজ্জ্বলিত ধ্রুবতারা,
প্রিয়জনের নীল চোখের আলোয়
মুছে দেয় আতঙ্ক আর ভয়।

[রাশিয়ান কবি আখমাতোভার রচনার সাথে বাঙালি পাঠকের অল্পবিস্তর পরিচয় আছে। বাংলায় আখমাতোভার কিছু কবিতা অনুবাদ করেছেন শঙ্খ ঘোষ, সুনীল গঙ্গোপাধ্যায়, মঙ্গলাচরণ চট্টোপাধ্যায় ইত্যাদি বিশিষ্ট কবি, সাহিত্যিকগন।

আনা আন্দ্রিয়েভনা আখমাতোভা ২৩ জুন ১৮৮৯ রাশিয়ায় জন্মগ্রহণ করেন। সেই সময় রাশিয়ায় বিপ্লব, বিদ্রোহ, দারিদ্র্য আর রাজনৈতিক উত্থানের পালা চলছে। অর্থনীতি ভেঙে পড়েছে। অনেকেই তখন দেশ ছেড়ে চলে গেছেন।

আখমাতোভার প্রথম দুটি বইয়ের নাম হল ভেচের, লিখেছেন ১৯১২। আর দ্বিতীয় বই হল-চিওৎকি, লিখেছেন ১৯১৪। ১৯১৭ সালে প্রকাশিত হল তাঁর তৃতীয় বই-বেলায়াত স্তায়া।]

ফেইসবুক থেকে করা মন্তব্যসমূহঃ

একই রকম আরোও

মন্তব্য করুনঃ

avatar
  Subscribe  
Notify of
Close